গ্লাসে তৈরিকৃত দূষিত পানি বিশুদ্ধ না করে পান করলে তোমার কী কী সমস্যা হতে পারে?

গ্লাসে তৈরিকৃত দূষিত পানি বিশুদ্ধ না করে পান করলে তোমার কী কী সমস্যা হতে পারে? – জীবাণুযুক্ত বা দূষিত পানি পান করলে নানা ধরনের অসুখ হতে পারে। এগুলোকে বলে পানিবাহিত রোগ। পানিবাহিত রোগের মধ্যে আছে ডায়রিয়া, কলেরা, আমাশয়, জিয়ার্ডিয়া, টাইফয়েড, পলিওমায়েলাইটিস, লিভারের অসুখ বা জন্ডিস (হেপাটাইটিস-এ, হেপাটাইটিস-ই), কৃমি ইত্যাদি।

পানিবাহিত রোগ যেন না হয়, সে জন্য নিরাপদ পানি পান করতে হবে। অনিরাপদ পানি সরাসরি পান না করে তা ফুটিয়ে, ফিল্টার করে, হ্যালোজেন ট্যাবলেট বা ক্লোটেক সলিউশন ব্যবহার করে নিরাপদ করে নিতে হবে। তবে পানি ফুটিয়ে জীবাণুমুক্ত করার পদ্ধতিই হলো সবচেয়ে ভালো পদ্ধতি।

গ্লাসে তৈরিকৃত দূষিত পানি বিশুদ্ধ না করে পান করলে তোমার কী কী সমস্যা হতে পারে?

সাধারণত মানুষের কার্যকলাপের ফলে জলাশয় দূষিত হয়ে পড়লে, তাকে পানি দূষণ বা জল দূষণ বলে

পরিবেশের কোন অপ্রয়োজনীয় পদার্থ পানির সাথে মিশে পানির ভৌত, রাসায়নিক ও জৈবিক বৈশিষ্ট্যের পরিবর্তন হয় এবং তার থেকে উদ্ভিদ, প্রাণী ও মানুষের ক্ষতির সম্ভাবনা থাকলে পানির সে আশঙ্কাকে পানি দূষণ বলে।

দূষিত পানি পান করার ফলে সম্প্রতি ভয়াবহ হারে বেড়ে গেছে পানিবাহিত রোগের প্রকোপ। দূষিত পানি পানেই এসব রোগের উত্পত্তি হয়। কিন্তু রাজধানী ঢাকায় এখনো সবার জন্য বিশুদ্ধ পানি নিশ্চিত করা সম্ভব হয়নি।

ওয়াসা যে পানি সরবরাহ করে। এতে গোসল থালা-বাসন ধোয়ার কাজ চলে। কিন্তু খাওয়া, রান্না বান্নার কাজ সেসব পানিতে করা সম্ভব হয় না। এখনো রাজধানীর বিভিন্ন এলাকায় ময়লা-গন্ধযুক্ত পানি সরবরাহ হয়।

সে পানি পান করলে নানা জটিল রোগের উত্পত্তি হয়। হেপাটাইটিস, টাইফয়েড, ডায়রিয়া, কলেরা, আমাশয়, জন্ডিসের মতো মারাত্মক ব্যাধির উত্স এই দূষিত পানি।

বিশেষজ্ঞ ডাক্তারদের অভিমত, এ রকম দূষিত পানি দীর্ঘদিন পান করতে থাকলে আরো জটিল রোগ, এমনকি মরণব্যাধি ক্যান্সারও হতে পারে। কিডনি রোগ, আলসার, রক্তচাপ, অ্যাজমা, যক্ষ্মা ইত্যাদি রোগের প্রকোপ বাড়তে পারে।

এক্ষেত্রে অবশ্যই স্মরণ রাখতে হবে বিশুদ্ধ পানির নিশ্চয়তা দিতে না পারলে জনস্বাস্থ্যকে সম্পূর্ণভাবে হুমকি মুক্ত করা যাবে না।

শেষ কথা হল…

ব্যাকটেরিয়া সংক্রমিত দূষিত জল পান করলে ডায়রিয়া, আমাশয়, পেটের সমস্যা, কলেরা, টাইফয়েড, জ্বর, জন্ডিস, পােলিও হতে পারে। সাধারণ গ্রামবাসীদের মধ্যে এই ধরণের রােগের প্রাদুর্ভাব যথেষ্ট বেশি দেখা যায়।

– ভারতে আনুমানিক ৪ লক্ষ্য ছােট শিশু প্রতি বছর মারা যায় ডায়রিয়ার কারণে

আরও দেখুন…

পানি বিশুদ্ধ করার প্রক্রিয়া লিখে উপস্থাপন – নবম শ্রেণী বিজ্ঞান ৫ম সপ্তাহ

Updated: May 31, 2021 — 4:20 am

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *