প্রজাহিতৈষী হিসেবে একজন শাসকের মূর্ত প্রতীক ছিলেন খলিফা উমর (রাঃ)-ব্যাখ্যা কর

উত্তর: ইসলামের দ্বিতীয় খলিফা উমর (রাঃ) একদিকে যেমন ছিলেন কঠোর অন্যদিকে ছিলেন কোমল হৃদয়ের অধিকারী। তিনি ন্যায়বিচার প্রতিষ্ঠার ক্ষেত্রে কঠোর পরিশ্রম করেছিলেন। তিনি ছিলেন হযরত মুহাম্মদ (সাঃ) এর আদর্শে আদর্শিত এক মহাপুরুষ। প্রজাহিতৈষী হিসেবে তিনি ছিলেন একজন মূর্ত প্রতীক।

অর্ধ পৃথিবী শাসন করা দ্বিতীয় খলিফা উমর (রাঃ) খুবই সহজ সরল ও অনাড়ম্বর জীবনযাপন করতেন। খেজুর পাতায় ছিল তাঁর আসন এবং তাঁর কোনাে দেহরক্ষী ছিল না। জাগতিক লোভ-লালসা, জাকঁজমকে কখনই আসক্ত হতেন না। তাঁর মধ্যে কঠোরতা ও কোমলতাঁর উভয়ের সমন্বয় ঘটেছিল। শাসক হয়েও তিনি রাতের আধারে প্রজাদের অবস্থা দেখার জন্য বের হতেন।

খাদ্য সামগ্রী নিজ কাঁধে বহন করে তা প্রজাদের মাঝে পৌঁছে দিতেন। তাঁর শাসনামলে রাজ্যে কোন। অভাব ছিল না। বায়তুলমাল থেকে প্রাপ্ত কাপড়ের সেই পরিমাণ গ্রহণ করতেন যে পরিমাণ সকলের জন্য নির্ধারিত ছিল। কৃষি কাজে ব্যাপক উন্নতি সাধনের জন্য তিনি নিজ উদ্যোগে খাল খনন করেন।

বিচারের মধ্যে তিনি ছিলেন অত্যন্ত কঠোর আর এর প্রকাশ ঘটে যখন মদ্যপানের অপরাধে নিজ পুত্রকে তিনি শান্তি দিয়েছিলেন। জনকল্যাণে তিনি অসংখ্য মসজিদ নির্মাণ করেছিলেন এবং সেই সাথে সেতু, সড়ক, হাসপাতাল নির্মাণ করার মাধ্যমে তিনি প্রজাদের অসুবিধা গুলাে দূর করেছিলেন।

এত বড় শাসক হয়েও তিনি কখনাে অহঙ্কার করতেন না আর এবার প্রমাণ ঘটে জেরুজালেম যাওয়ার পথে যখন ভূত্যকে উটের পিঠে চড়িয়ে নিজে উটের রশি ধরে টেনেছিলেন।

Updated: March 20, 2021 — 8:03 pm

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *